নুসরাত হত্যা: প্রতিবাদ উঠুক আলেমদের থেকে

মাসুদ আনসারী
ফেনী

ধর্ষক ও খুনী সিরাইজ্জা এতদিন যাবত সমাজে একজন আলেমের প্রতিনিধিত্ব করেছে। একটা স্বতন্ত্র লেবাসের প্রতিনিধিত্ব করেছে। তাই আলেম সমাজ অর্থাৎ যারা এই পোশাকের প্রতিনিধিত্ব করেন আপনাদের উচিত ছিল এই সন্ত্রাসী ও লুইচ্চার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চেয়ে প্রতিবাদ করা। আওয়াজ তোলা। আপনাদের পোশাকের, এলমের মর্যাদা রক্ষার্থেও তা আপনাদের করা উচিত ছিলো।

কিন্তু আপনেরা তা করলেন না। আমি পুরো দেশের আলেমদের কথা বলতে চাই না। আমি শুধু আমাদের ফেনীর আলেম সমাজের কথা আলাদাভাবে বলতে চাই। এই বিষয়টাতে আপনাদের প্রতিবাদ করাটা একদম বাধ্যতামূলকই ছিলো, কারণ প্রধান আসামী একজন আলেমেদের প্রতিনিধিত্ব করেছিলো। আপনাদের একজন প্রতিনিধি ছিলো।

কওমি কিংবা আলীয়া বলেন সবাই আপনারা এক ব্যানারে এসে আওয়াজ তুলতে পারতেন। উপযুক্ত শাস্তি চেয়ে রাস্তায় নামতেন। স্পষ্ট ভাষায় বলে দিতে পারতেন… পাঞ্জাবি, দাঁড়ি-টুপি থাকলেই শুধু আলেম হওয়া যায় না। এদের থেকে বিরত থাকতে সচেতনতা সৃষ্টি করতে পারতেন। আপনারা নিজেদের মানদণ্ড তুলে ধরে ধরতে পারতেন।

এই যে আলেমদের প্রতি এখন একটা নেতিবাচক মনোভাব জন্মালো সেটা প্রতিবাদ না করায় এখন ভালো আলেমরাও এই নেতিবাচকতার মধ্যে পড়ে গেলেন। আপনাদের দেখলেও এখন অনেকে সিরাইজ্জা ভাববে। শুধু শাস্তির দাবি নয়, আপনাদের নিজেদেরই মান-সম্মান রক্ষার জন্য হলেও তো আপনাদের প্রতিবাদ করা উচিত ছিল। উচিত ছিল। উচিত ছিল।

/আরএ

Comments